ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৮ মে ২০২৪ ||  জ্যৈষ্ঠ ১৪ ১৪৩১

পাবনা, শরীয়তপুর ও দিনাজপুরে হিটস্ট্রোকে ৪ জনের মৃত্যু

নিউজ ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:১২, ২১ এপ্রিল ২০২৪   আপডেট: ২০:৪৬, ২১ এপ্রিল ২০২৪
পাবনা, শরীয়তপুর ও দিনাজপুরে হিটস্ট্রোকে ৪ জনের মৃত্যু

ছবি: প্রতীকী

শরীয়তপুর সদরে তীব্র দাবদাহে হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে হারুন চৌকিদার (৪৩) নামে অটো রিকশাচালকের মৃত্যু হয়েছে। রোববার (২১ এপ্রিল) দুপুর ১টার দিকে জেলা পরিষদের সামনে অটো রিকশার গ্যারেজে তার মৃত্যু হয়। এ ছাড়া, দিনাজপুরের ফুলবাড়ী ও পাবনাতে প্রচণ্ড তাপপ্রবাহে হিটস্ট্রোকে তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। 

মৃতরা হলেন- ফুলবাড়ী পৌর এলাকার চকসাবাজপুর গ্রামের মৃত মোশারফ হোসেনের ছেলে সাবেক পৌর কাউন্সিলর মোতাহার আলী (৫৮) অপর জন যশোর কোতোয়ালি থানা এলাকার রাজারহাট গ্রামের ট্রাক চালক বিল্লাল হোসেন (৫২)। 

পড়ুন: দিনাজপুরে হিটস্ট্রোকে ২ জনের মৃত্যু

নিহত মোতাহার হোসেনের ছেলে সানজিদ আহম্মেদ সুইট বলেন, হঠাৎ করে শনিবার (২০ এপ্রিল) সকালে আমার বাবার শরীরে জ্বর আক্রান্ত করে। বাসাতে প্রাথমিক ট্রিটমেন্ট নেওয়ার সময় নিয়ে বিকেলে আমার বাবা বেশি অসুস্থ হয়ে পড়েন। এ সময় তাকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

অপরদিকে ট্রাকমালিক সোহরাব হোসেন বলেন, যশোর থেকে পাথরের ডাষ্টের ভাড়া আনতে বড়পুকুরিয়া এলাকায় যান ট্রাক চালক বিল্লাল হোসেন। শনিবার রাত ১০টার দিকে অসুস্থ হয়ে পড়লে স্থানীয়রা তাকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেন। এ সময় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। শুনেছি স্ট্রোক করে ড্রাইভার বিল্লালের মৃত্যু হয়েছে।

ফুলবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মশিউর রহমান বলেন, স্থানীয়রা ট্রাকচালক বিল্লাল হোসেনকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে তার পালস পাওয়া যাচ্ছিল না। এখানে আনার আগেই তার মৃত্যু হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, অতিরিক্ত গরমে হিটস্ট্রোকে তার মৃত্যু হয়েছে। সাবেক পৌর কাউন্সিলর মোতাহার আলীরও মৃত্যু একই কারণে হয়েছে।

অন্যদিকে শরীয়তপুর সংবাদদাতা জানান, দুপুরের দিকে ডিসি অফিসের সামনে হারুনের অটোরিকশার সামনের চাকায় ত্রুটি দেখা দেয়। সেখান থেকে তিনি অটোরিকশা নিজে ঠেলে জেলা পরিষদের সামনের অটোরিকশার গ্যারেজে মেরামত করাতে নিয়ে আসেন। সেখানে তিনি অটোরিকশার চাকা নিজে খুলতে থাকেন। কাজ করতে করতে প্রচণ্ড গরমে অসুস্থ হয়ে পড়েন। হাসপাতালে নেওয়ার প্রস্তুতিকালে তিনি মারা যান।

পড়ুন: শরীয়তপুরে হিটস্ট্রোকে অটো চালকের মৃত্যু 

এ বিষয়ে হারুনের চাচাত ভাই অ্যাডভোকেট শামসুজ্জামান সেকেন্দার বলেন, হারুন তীব্র গরমের মধ্যে কাজ করতে করতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন। হাসপাতালে নেওয়ার প্রস্তুতি নিতে নিতে তার মৃত্যু হয়। তার কোনও রোগ ছিল না।

সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. সাবিকুন নাহার বলেন, অতিরিক্ত গরমে কাজ করার ফলে হিটস্ট্রোকে তার মৃত্যু  হয়েছে।  

আবহাওয়া অফিস সূত্র জানায়, গত কয়েক দিন ধরে শরীয়তপুর জেলার ওপর দিয়ে তীব্র তাপদাহ বয়ে যাচ্ছে। শনিবার (১৯ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত জেলার তাপমাত্রা ছিল ৪০ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। 

পাবনা প্রতিনিধি জানান, ভূট্টার ক্ষেতে কাজ করতে গিয়ে হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে আলাউদ্দিন আলী ওরফে আলাল (৪৩) নামে কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। রোববার (২১ এপ্রিল) সকাল ৯টার দিকে পাবনার চাটমোহর উপজেলার মূলগ্রাম ইউনিয়য়নের নেউতিগাছা গ্রামে তার মৃত্যু হয়। তিনি ওই গ্রামের ইউসুফ আলীর ছেলে।

মৃত আলাউদ্দিনের ছেলে আলম হোসেন জানান, বাড়ির অদূরে বিলের মধ্যে নিজের ভূট্টা ক্ষেতে কাজ করতে যান তার বাবা। এ সময় তীব্র রোদ ও গরমে অসুস্থ হয়ে জমির মধ্যে জ্ঞান হারান তিনি। পরে ওই জমির পাশে ঘাস কাটার সময় স্থানীয় মজিবর রহমান তাকে পড়ে থাকতে দেখতে পান। এরপর স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পার্শ্ববর্তী আটঘরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান স্বজনরা। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আলাউদ্দিন আলীকে মৃত ঘোষণা করেন।

পড়ুন: পাবনায় হিটস্ট্রোকে কৃষকের মৃত্যু

আলাউদ্দিন আলী হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বলে নিশ্চিত করেছেন পাবনা জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. আয়েশা সিদ্দিকা। তিনি বলেন, ‘প্রচণ্ড গরমে প্রতিদিনই মানুষ হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হচ্ছেন। অনেক রোগী হাসপাতালে আসছে। চাটমোহরের আলাউদ্দিন হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে এসেছিলেন বলে আমাদের প্রাথমিক ধারণা।’

মোসলেম/আকাশ/শাহীন/এনএইচ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ