ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৩ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৮ ১৪৩১

পালসার N250 এর রেজিস্ট্রেশন নিয়ে যা বললো উত্তরা মটরস

শাহেদ হোসেন || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৮:১১, ২৯ নভেম্বর ২০২৩  
পালসার N250 এর রেজিস্ট্রেশন নিয়ে যা বললো উত্তরা মটরস

দীর্ঘ প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে বাংলাদেশের বাজারে বিক্রি শুরু হতে যাচ্ছে ১৬৫ সিসির ওপরের ক্ষমতা সম্পন্ন ইঞ্জিনের বাইক। দেশের বাজারে মোটরসাইকেল উৎপাদন, সংযোজন ও আমদানিকারকদের মধ্যে সবার আগে উত্তরা মটরস ২৭ নভেম্বর বাজাজ পালসার N250 লঞ্চ করার মধ্য দিয়ে ২৫০ সিসির বাইক বাজারে ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছে।

তবে আইনি জটিলতা এবং সরকারি প্রক্রিয়াগুলো এখনও শেষ না হওয়ায় উচ্চ সিসির বাইকটি কিনে ক্রেতা কবে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) কাছ থেকে রেজিস্ট্রেশন সনদ পাবে তা নিয়ে সংশয় রয়েছে বলে অনেকে অভিযোগ করেছেন। কারণ বিআরটিএ কর্তৃপক্ষ এখনও উচ্চ সিসির বাইকগুলোর রেজিস্ট্রেশন ফি নির্ধারণ করেনি কিংবা এ সংক্রান্ত কোনো ঘোষণা দেয়নি। সেই হিসাবে, ফি নির্ধারণের আগেই ক্রেতা বাইক কিনলেও রেজিস্ট্রেশনের জন্য হয়তো তাকে দীর্ঘ দিন অপেক্ষা করতে হবে।

রাজধানীতে উত্তরা মটরসের অনুমোদিত কয়েকটি শো রুমে ইতিমধ্যে পালসার N250 দেখা গেছে। শো রুম সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, তারা এই মুহুর্তে বাইকটি বিক্রি করছেন না, বরং প্রি-বুক নিচ্ছেন। 

পালসার N250 মডেলটি বিক্রি শুরু হলে ক্রেতা বিআরটিএ-তে রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন কিনা জানতে চাইলে উত্তর মটরসের জনসংযোগ কর্মকর্তা উৎপল কুমার রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘আমরা জানতে পেরেছি বিআরটিএ থেকে উচ্চ সিসির বাইকগুলোর টাইপ অ্যাপ্রুভাল হয়ে গেছে। রেজিস্ট্রেশন ফি এর বিষয়টি ঘোষণা করতে তাদের সপ্তাহখানেক সময় লাগতে পারে। তবে বড় বিষয়টি হচ্ছে, যতক্ষণ পর্যন্ত বিআরটিএ উচ্চ সিসির বাইকগুলোর ফি নির্ধারণ না করছে ততক্ষণ পর্যন্ত আমরা ক্রেতার কাছে বাইক হস্তান্তর করব না।’

ঢাকা/শাহেদ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়