ঢাকা     রোববার   ২২ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ৮ ১৪২৯ ||  ২০ শাওয়াল ১৪৪৩

একসঙ্গে ১০ সন্তান জন্ম দিয়ে বিশ্বরেকর্ড!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০০:৫৩, ২১ জানুয়ারি ২০২২  
একসঙ্গে ১০ সন্তান জন্ম দিয়ে বিশ্বরেকর্ড!

বাদশাহ সালমান সামরিক চিকিৎসাকেন্দ্রের মেডিক্যাল টিম।

যে কোন নারীর জন্যই সন্তান জন্ম দেওয়া সবচেয়ে আনন্দের অনুভূতি। যমজ ২-৩টি সন্তান জন্মানোর ঘটনা বেশ স্বাভাবিক। এর অধিক সন্তানও অনেক নারীই একসঙ্গে জন্ম দিয়েছেন। তবে একসঙ্গে ১০ সন্তান জন্ম দেওয়ার কথা শুনেছেন?

অবিশ্বাস্য হলেও সত্য, মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সৌদি আরবে ৩৪ বছর বয়সী এক নারী একসঙ্গে ১০ সন্তানের জন্ম দিয়ে বিশ্বরেকর্ড করেছেন। তিনিই প্রথম নারী, যিনি একসঙ্গে সর্বোচ্চ সংখ্যক সন্তান জন্ম দিয়েছেন এবং সবাই সুস্থভাবে বেঁচে আছে।

দেশটির রাজধানী রিয়াদের তাবুক শহরে বাদশাহ সালমান সামরিক চিকিৎসাকেন্দ্রে গত ১২ জানুয়ারি ওই শিশুদের জন্ম হয়।

সৌদি গেজেটের বরাত দিয়ে মীর-২৪ নামে একটি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, ৩৪ বছর বয়সী ওই নারী হাসপাতালটির স্ত্রীরোগ বিভাগের প্রধান আত্তিয়া আল-জাহরানির নেতৃত্বে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। পরে গত ১২ জানুয়ারি তিনি একসঙ্গে ৫ জোড়া যমজ সন্তান প্রসব করেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়, নবজাতক শিশুদের ওজন ৯৫০ গ্রাম থেকে ১ হাজার ১০০ গ্রামের মধ্যে রয়েছে। এটি প্রয়োজনের তুলনায় কম ওজন হলেও ১০টি শিশুই সুস্থ রয়েছে।

এর আগে ২০২১ সালে মালির ২৫ বছর বয়সী এক নারী একসঙ্গে ৯ সন্তানের জন্ম দিয়ে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ডে নাম লিখিয়েছেন। হালিমা সিসো নামের ওই নারীর গর্ভকালীন সময়ে পরীক্ষা করে ৭টি শিশুর উপস্থিতি টের পান চিকিৎসকরা। তবে ডেলিভারির সময় দেখা যায়, আরও ২ সন্তানের জন্ম নিয়েছে। হালিমা একসঙ্গে ৫ মেয়ে ও ৪ ছেলে সন্তানের জন্ম দেন।

তারও আগে ২০০৯ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে একসঙ্গে ৮ সন্তানের জন্ম দিয়ে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নাম লেখান এক নারী। নাদ্যা সুলেমান নামক ওই নারীর সব সন্তানেরাই সুস্থ আছে। জানা যায়, তিনি ভিট্রো ফার্টিলাইজেশনের মাধ্যমে গর্ভধারণ করেছিলেন। 

সূত্র: তুর্কমেন পোর্টাল

ঢাকা/এনএইচ

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়