ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৯ নভেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ১৫ ১৪২৯ ||  ০৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

ট্রফি ভেঙে আলোচনায় আলীকদমের ইউএনও

বান্দরবান প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:১৩, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২   আপডেট: ১৭:৩৪, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২
ট্রফি ভেঙে আলোচনায় আলীকদমের ইউএনও

পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান

বান্দরবানের আলীকদম উপজেলার আলীকদম ইউনিয়নে ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার ট্রফি (কাপ) ভেঙে ফেলেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মেহরুবা ইসলাম। সেই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এতে তিনি আলোচনায় এসেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার (২৩ সেপ্টেম্বর) বিকেলে উপজেলার ২নং চৈক্ষং ইউনিয়নের রেপারপাড়ার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে স্বাধীন যুব সমাজের উদ্যোগে আন্তঃইউনিয়ন ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। এতে আবাসিক জুনিয়র একাদশ বনাম রেপারপাড়া বাজার একাদশ অংশ নেয়। খেলার প্রধান অতিথি ইউএনও মেহরুবা ইসলাম খেলায় সমাপনী বক্তব্যে এবং পুরস্কার বিতরণ করার এক পর্যায়ে খেলোয়াড় ও দর্শকদের ওপর বিরক্ত হয়ে ট্রফি (কাপ) ভেঙে ফেলেন।

এ বিষয়ে বিশেষ অতিথি উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান কফিল উদ্দিন বলেন, ৭০ মিনিটের খেলায় কোনো দলের গোল না হওয়ায় রেফারি টাইব্রেকারে যান। ট্রাইব্রেকারে আবাসিক জুনিয়র ৩-১ গোলে রেপারপাড়া বাজার দলকে হারায়।

উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান আরও বলেন, খেলার ফলাফল মেনে না নেওয়ায় হট্টগোল লেগে যায়। এতে ইউএনও উপস্থিত দর্শকদের বলেন—  খেলার হার-জিত থাকবে, এতে কারও মন খারাপের কারণ নেই। তিনি সকলকে খেলার ফলাফল মেনে নিতে বলেন। এতে দর্শকরা নিবৃত হয়নি। তিনি তখন দর্শকদের কাছে খেলার ফলাফলে সন্তুষ্ট কি-না জানতে চাইলে কয়েকজন খেলার ফলাফলে ‘মানি না’ বলায় ইউএনও বিরক্ত হন। তথন তিনি চ্যাম্পিয়ন এবং রানার্সআপ ট্রফি ভেঙে ফেলেন। ঘটনার পর পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে ইউএনও-কে ঘটনাস্থল থেকে চলে যেতে অনুরোধ করা হয়।

অভিযোগ স্বীকার করে মেহেরুবা ইসলাম বলেন, ‘খেলা শেষে হওয়ার পর থেকে হট্টগোল চলছিল। কিছুটা শান্ত হলে পুরস্কার বিতরণ শুরু হয়। তখন কয়েকজন মঞ্চে এসে বলেন- তারা ফলাফল মানেন না। এ নিয়ে ঝগড়া লেগে যায় দুইপক্ষের মধ্যে। তাদের শান্ত করতে দীর্ঘ সময় কথা বলেছি। তাদের বুঝাতে তাদের সম্মতিতে ট্রফি ভাঙা হয়েছে। ট্রফি ভাঙার পরও খেলোয়াড়রা মেডেল গ্রহণ করেছেন কিন্তু পুরো ঘটনা বাদ দিয়ে আংশিক ভিডিও প্রচার করেছে একটি মহল।’   

গত ২৪ এপ্রিল মেহরুবা ইসলাম বান্দরবানের আলীকদম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসাবে যোগ দেন। 
 

বাসু/বকুল

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়