ঢাকা     শুক্রবার   ০২ ডিসেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ১৮ ১৪২৯ ||  ০৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

সাতক্ষীরায় সাবিনা ও তার মাকে সংবর্ধনা

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:৪৭, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২   আপডেট: ১৮:০৪, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২
সাতক্ষীরায় সাবিনা ও তার মাকে সংবর্ধনা

সাবিনা ও তার মাকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবীর

সাফ নারী চ্যাম্পিয়নশীপ-২০২২ জয়ী বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের অধিনায়ক সাবিনা খাতুন ও তার মা মমতাজ বেগমকে সংবর্ধনা দিয়েছে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন। শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে আয়োজিত অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এক লাখ টাকা তুলে দেওয়া হয় সাবিনার হাতে। এসময় সাতক্ষীরা সদর আসনের সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহম্মেদ রবি সাবিনাকে তিন লাখ টাকা পুরস্কার দেওয়ার ঘোষণা দেন।

এর আগে সাবিনা ও তার মা জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে এসে পৌঁছালে তাদের ফুল দিয়ে বরণ করা হয়।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবীরের সভাপতিত্বে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সাতক্ষীরা সদর আসনের সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহম্মেদ রবি।

এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট রাশেদ রেজা, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় বিভাগের সাতক্ষীরার সহকারী পরিচালক মাসরুবা দিলরুবা, সাতক্ষীরার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সজীব খান, আন্তজার্তিক রেফারি তৈয়ব
হাসান বাবু, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহসভাপতি আশরাফুজ্জামান আশু, জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি শেখ আবু নাসের, প্রমুখ।

সাবিনার হাতে পুরস্কার হিসেবে ৫০ হাজার টাকা তুলে দেন পুলিশ ‍সুপার 

অনুষ্ঠানে সাবিনা খাতুন অভাব অনটন ও প্রতিবন্ধকতার মধ্য দিয়ে যেভাবে নিজেকে জাতীয় স্তরের নারী ফুটবলে প্রতিষ্ঠিত করেছেন সে বিষয়ে বক্তব্য দেন। এসময় তিনি তার ফুটবল প্রয়াত কোচ আকবর আলী, বড় বোন সালমা, বাবা ও মায়ের অবদানের কথা 
উল্লেখ করেন। 

সাবিনা খাতুন তার ফুটবল কোচ আকবর আলীর প্রতিষ্ঠিত জ্যেতি ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি যাতে মাথা উচু করে দাঁড়িয়ে থাকতে পারে সেজন্য সবার সহযোগিতা কামনা করেন। একই সঙ্গে তিনি জেলা প্রশাসকের কাছে নারীদের ফুটবল খেলার জন্য একটি মাঠ, তার নিজের বাড়িতে ঢোকার রাস্তাটি সংস্কার ও নিজের বোনের চাকরির জন্য আবেদন করেন।

সাবিনা খাতুনের মা মমতাজ বেগম,  ‘আমার মেয়ে যেভাবে প্রতিকূল পরিস্থিতির মধ্যে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছে তেমন পরিস্থিতি যাতে অন্য কোনো মেয়ের ক্ষেত্রে সৃষ্টি না হয়। আমি নারী ফুটবলের জন্য সবার সুদৃষ্টি কামনা করছি।’

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবীর বলেন, ‘সাবিনা সাতক্ষীরাকে গর্বিত করেছে। মাছুরা সাতক্ষীরায় এলে দুজনকেই সাতক্ষীরা স্টেডিয়ামে বড় আকারে সংবর্ধনা দেওয়া হবে। সাতক্ষীরায় নারী খেলোয়াড়দের এগিয়ে নিতে সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হবে।’ 

সাংসদ সদস্য মীর মোস্তাক আহম্মেদ রবি বলেন, ‘সাবিনা ও মাছুরা শুধু সাতক্ষীরার নয় সারা বাংলাদেশকে বিশ্বের সামনে নতুন জায়গায় দাঁড় করিয়েছেন। সাতক্ষীরার নারী ফুটবলারদের জন্য সবধরণের সহযোগিতার অব্যাহত রাখার চেষ্টা করবো।’ 

এদিকে একই দিন দুপুর ২টার দিকে জেলা পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে সাতক্ষীরা পুলিশ সুপার কাজী মনিরুজ্জামানের সভাপতিত্বে এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সেখানে সাবিান ও তার মাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের অধিনায়কের হাতে নগদ ৫০ হাজার টাকা তুলে দেওয়া হয়।

শাহীন/ মাসুদ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়