ঢাকা, শনিবার, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

‘ব্যাটিং পজিশন তুষারের সবচেয়ে বড় বাধা’

ইয়াসিন : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-১০-২৬ ৪:০৯:১৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১০-২৬ ৭:৩৭:৪১ পিএম

ক্রীড়া প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম থেকে : ঘরোয়া ক্রিকেটে তার ব্যাট হাসছে নিয়মিত। ২২ গজে তার মাঠে নামা মানেই সেঞ্চুরি কিংবা তারও বেশি। বয়সের সাথে সাথে বাড়ছে রানের ক্ষুধা। তাকে শুধু আটকে রাখা কঠিনই না, দুরূহ। পরীক্ষিত পারফরমার, রয়েছে অভিজ্ঞতা। বিনিময়ে মিলল নির্বাচকদের ‘উপেক্ষা’! বলছিলাম তুষার ইমরানের কথা।

চলতি বছর ১২টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে ৭৬.১৮ গড়ে রান করেছেন তুষার। মোট রান ১২৫১, সেঞ্চুরি ৭টি। তবুও তাকে টেস্ট স্কোয়াডে রাখলেন না নির্বাচকরা। এবারের প্রতিপক্ষটা জিম্বাবুয়ে। ঘরের মাঠে তাকে ফেরানোর এতো ভালো উপলক্ষ্য আর পেতেন না নির্বাচকরা। কিন্তু তাকে বাদ দিয়েই তৈরি হলো জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে রণ কৌশল।

বাংলাদেশের একমাত্র ব্যাটসম্যান হিসেবে ১১ হাজার রানের মাইলফলক কিছুদিন আগেই ছুঁয়েছেন তুষার। রানের ফোয়ারায় তার বসবাস। কিন্তু তাকে বিবেচনাতেই আনলেন না নির্বাচকরা। অথচ নির্বাচকদের দল নির্বাচনের টেবিলের তাকে নিয়ে আলোচনা হয়েছে বিস্তার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত চোখের আড়াল হয়ে গেলেন তুষার।
 


কেন তাকে নেওয়া হলো না? প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন জানালেন রাইজিংবিডিকে, ‘দেখুন তুষারের ব্যাটিং পজিশনটা ওর সবচেয়ে বড় বাধা। ও ব্যাটিং করছে মিডল অর্ডারে। সেখানে আমাদের অপরিবর্তনীয় খেলোয়াড় আছে। মুশফিক, মাহমুদউল্লাহ, সাকিব ওদের জায়গায় অপরিবর্তনীয়। ওদের টেস্টে অন্তত নাড়াচড়া করানোর কোনো সুযোগ নেই।’

মিনহাজুল আবেদীনের কথায় যুক্তিও আছে। আবার রয়েছে পাল্টা যুক্তি। দলের সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান এ টেস্ট সিরিজে নেই। সেক্ষেত্রে তুষারের মতো অভিজ্ঞ খেলোয়াড়কে বাজিয়ে দেখতে পারতেন নির্বাচকরা। সেই সিদ্ধান্তে কেন গেলেন না নির্বাচকরা? ‘ওকে নিয়ে আলোচনা হয়েছে। আমাদের শুধু এই সিরিজ নিয়েই ভাবলে হবে না। তিন ফরম্যাটে দলে নিয়মিত কারা হতে পারে সেটা চিন্তা করা জরুরি। ভবিষ্যতের কথা আমাদের চিন্তা করতে হবে। আমরা সেই মোতাবেক দল সাজিয়েছি’- বলেছেন প্রধান নির্বাচক।


প্রধান নির্বাচকের কথায় স্পষ্ট, দলে ফেরানোর ক্ষেত্রে নির্বাচক প্যানেল ও টিম ম্যানেজমেন্ট তুষারের বয়স ও ফিটনেস বিবেচনায় এনেছেন। ৩৪ বছর ৩১০ দিন বয়সি তুষার সময়ের সেরা ফিটনেস নিয়ে খেলছেন। ব্যাটে রানের ফুলঝুরি। তবুও মন গলাতে পারেননি নির্বাচকদের।

দলে সুযোগ পাননি তাতে অনেক আক্ষেপ তুষারের। নির্বাচক ও টিম ম্যানেজমেন্টের সমালোচনা করলেন না। তবে বেশ আক্ষেপ নিয়েই বললেন, ‘আর খেলে লাভ কী? আমাকে নিয়ে যেসব চিন্তা হচ্ছে সেসব তো আলোচনাতেই আসার কথা না। অন্যদের ক্ষেত্রে কি একই আলোচনা আসে? আফসোস পরিপক্ক হবার আগেই অভিষেক হয়েছিল। তখন অনেক কিছু চাইলেও পারিনি। আর এখন আফসোস হচ্ছে এতো অভিজ্ঞতা আর রান করছি অথচ সুযোগ পাচ্ছি না।’

 

 

রাইজিংবিডি/চট্টগ্রাম/২৬ অক্টোবর ২০১৮/ইয়াসিন/আমিনুল/পরাগ

Walton Laptop