ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

‘এভাবে শুরু করতে পারলে ৩০০ রান ব্যাপার হবে না’

আবু হোসেন পরাগ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-১২-০৬ ৭:৩৪:৫৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১২-০৭ ৯:১১:২৩ এএম

ক্রীড়া প্রতিবেদক, বিকেএসপি থেকে : ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে একদিনের প্রস্তুতি ম্যাচে তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকারের কাছেই হেরে গেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এই দুজনের সেঞ্চুরিতে তিনশ ছাড়ানো লক্ষ্য তাড়া করে জিতেছে বিসিবি একাদশ।

বিকেএসপিতে বৃহস্পতিবার আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটে ৩৩১ রান করেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। জবাবে বিসিবি একাদশ ৪১ ওভারে ৬ উইকেটে ৩১৪ রান তোলার পর আলোকস্বল্পতায় খেলা আর এগোয়নি। ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে ৫১ রানের জয় পায় বিসিবি একাদশ।

বড় লক্ষ্য তাড়ায় উদ্বোধনী জুটিতেই ৫৩ বলে ৮১ রান তুলে ফেলেন তামিম ও ইমরুল কায়েস। দ্বিতীয় উইকেটে সৌম্যর সঙ্গে ১১৪ রানের আরেকটি বড় জুটি গড়েন তামিম। বাঁহাতি ব্যাটসম্যান ১০৭ রান করে আউট হলেও সৌম্য ১০৩ রানে অপরাজিত ছিলেন। প্রস্তুতি ম্যাচের এমন পারফরম্যান্স ওয়ানডে সিরিজে বাংলাদেশ দলকে বাড়তি আত্মবিশ্বাস জোগাবে বলে মনে করেন সৌম্য।

প্রস্তুতি ম্যাচে দলের ও নিজের পারফরম্যান্স নিয়ে ম্যাচ শেষে সংবাদমাধ্যমের সামনে কথা বলেছেন সৌম্য। তারই চুম্বক অংশ তুলে ধরা হলো।

প্রশ্ন : বড় লক্ষ্যে ব্যাটিং করার পরিকল্পনা...
সৌম্য সরকার :
আসলে শুরুতে আমার তেমন কোনো পরিকল্পনা ছিল না। তামিম ভাই অনেক ভালো করছিল। প্রত্যেক ওভারে অনেক রান আসছিল। আমি চেষ্টা করেছি যে তাকে সাপোর্ট দেওয়ার। উনি আমাকে কিছু কথা বলছিল যেগুলো আমার জন্য হেল্পফুল ছিল। সেই অনুসারেই ব্যাটিং করেছি। একটা ভুল শট খেলেছি। এর মধ্যে উনি একটি কথা বলেছেন, তখন আরো মাথা খুলেছে। উইকেটের মধ্যে কিছু কিছু কথাও আসলে অনেক হেল্পফুল। আমারও উচিৎ ছিল পরিস্থিতি বোঝা। রান অনেক আসছিল। প্রথম দশ ওভারে অনেক রান ছিল। প্রায় ৮০-৯০ এর মতো রান ছিল। সেই অনুসারেই খেলছিলাম যে ইনিংসটি বড় করি। আর শেষের দিকে যেয়ে মনে হয়েছিল যে আমি যদি উইকেটে থাকি তাহলে অবশ্যই ম্যাচটি জিতব। সুতরাং ঐ আত্মবিশ্বাসটি নিয়েই শেষ পর্যন্ত থাকার চেষ্টা।

প্রশ্ন : ওয়ানডে সিরিজের আগে প্রস্তুতি কেমন হলো? উইন্ডিজের বিপক্ষে ধারাবাহিকতা ধরে রাখা সম্ভব কি না?
সৌম্য সরকার :
অবশ্যই। তামিম ভাই যেভাবে ইনজুরি থেকে ফিরে ব্যাটিং করছিল মনে হচ্ছিল না উনি বাইরে ছিল। ওনার আত্মবিশ্বাস দেখে নন স্ট্রাইক থেকে আমারও মনে হয়েছিল যে যেহেতু উনি ভালো করছে আমি যদি ওনাকে সাপোর্ট দিয়ে যেতে পারি, তাহলে আরো সহজ হবে রান করা। কারণ দুই পাশ থেকে যদি রান আসতে থাকে তাহলে অনেক এগোতে থাকে রান। আমি সেটাই চেষ্টা করেছি ওনাকে সাপোর্ট দিয়ে যাওয়ার।

প্রশ্ন : এই জয় ওয়ানডে সিরিজের আগে আত্মবিশ্বাস যোগাবে কি না?
সৌম্য সরকার  :
অবশ্যই, এই ধারবাহিকতা যদি সবাই ধরে রাখতে পারি  কিংবা এই আত্মবিশ্বাসটি যদি সবার মধ্যে থাকে তাহলে তা সবাইকে সাহায্য করবে পরবর্তী ম্যাচগুলোর জন্য। প্রস্তুতি ম্যাচে আমরা ৩০০ এর ওপরে রান তাড়া করতে গিয়েছি, প্রায় আট নয় ওভার বাকি ছিল, এর মধ্যে আমরা ম্যাচটি শেষ করতে পেরেছি। তো মূল ম্যাচেও যদি আমরা এভাবে ভালো শুরু করতে পারি তাহলে ৩০০ রান কোনো ব্যাপার হবে না। মানে সহজ হবে।



প্রশ্ন  : ঘরোয়া ক্রিকেটের পারফরম্যান্সের ধারাবাহিকতা...
সৌম্য সরকার  :
তেমন কিছু না। যেটি বললাম যে উইকেটের বেশিক্ষণ থাকার চেষ্টা করেছি। উইকেটে যতক্ষণ থাকতে পারব চেষ্টা করব। তামিম ভাই যেমন একটি কথা বলেছিল উইকেটের ভেতরে। এই কথাটি হয়তো বাইরে ওনার কাছে পেতাম না। তো উইকেটে  থেকে এই কথাগুলো শেখা সহজ। অথবা পরিস্থিতি বুঝে প্রতিপক্ষের বিপক্ষে খেলে যা করা যায় তা অনেক হেল্পফুল। আর আমি এখন চেষ্টা করছি উইকেটে বেশিক্ষণ থাকার। নিজের শটগুলো আত্মবিশ্বাস নিয়ে খেলার।

প্রশ্ন :  তামিমের ব্যাটিং...
সৌম্য সরকার  :
আমার কাছে ওনার ব্যাটিং দেখে মনে হয়নি যে উনি বাইরে থেকে আসল কিংবা কয়েকটি ম্যাচ বাইরে ছিল। আমার দেখে খুব ভালো লেগেছে যে উনি অনেক আত্মবিশ্বাসী ছিলেন। আর শুরুতে একটি ভালো স্টার্ট পেয়েছে। এমন স্টার্ট সব সময় হয় না। আমি চাইব যে এমন স্টার্ট সব সময় উনি দিতে পারবেন, এটি বাংলাদেশের জন্যও ভালো, ওনার জন্যও ভালো।

প্রশ্ন : আপনার  প্রত্যাশা...
সৌম্য সরকার  :
আশা তো সব সময় বড়ই থাকে। আর স্বপ্ন বড় থাকাই তো ভালো। স্বপ্ন আমারও বড় থাকে। চেষ্টা করব যে ম্যাচগুলোতে সুযোগ পাব ধারাবাহিকতা বজায় রাখার। যেমনটা যাচ্ছে এমনটা রাখতে, সব সময় তো সবার সবকিছু হয় না। চেষ্টা করব যে সুযোগ পেলে শেষ ম্যাচটি যেভাবে খেলেছি তেমনভাবে আত্মবিশ্বাসী হয়ে খেলতে।

প্রশ্ন  : তামিমের সঙ্গে পার্থক্য...
সৌম্য সরকার  :
তামিম ভাই তো দলের জন্য সব সময়ই একটি অনুপ্রেরণা। উনি থাকলে সবার একটি আত্মবিশ্বাস থাকে যে সিনিয়র ক্রিকেটার, উনি ভালো টাচেও আছেন। উনি থাকলে একটি বিষয় থাকে যে ভালো একটি শুরু আসলে আমরা পেছনের দিকে আমাদের যে ব্যাটসম্যানেরা আছে তারা সহজেই ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে পারে।



রাইজিংবিডি/সাভার/৬ ডিসেম্বর ২০১৮/পরাগ

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC