ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৩ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৮ ১৪৩১

বগুড়ার ৬ আসনে নৌকা চায় ৪৪ জন

বগুড়া প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:২৫, ২৩ নভেম্বর ২০২৩   আপডেট: ১৯:৩০, ২৩ নভেম্বর ২০২৩
বগুড়ার ৬ আসনে নৌকা চায় ৪৪ জন

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের জন্য ইতোমধ্যে ৭২টি আসনের জন্য আওয়ামী লীগ প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে। আগামী ২৫ নভেম্বর শনিবার আওয়ামী লীগের চূড়ান্ত মনোনয়ন তালিকা প্রকাশ করা হবে। বৃহস্পতিবার (২৩ নভেম্বর) মনোনয়ন বোর্ডের সভা শেষে বিষয়টি জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। এ সময় তিনি বলেন, এবার রাজনীতির বাইরে কাউকে মনোনয়ন দেওয়া হয়নি। জনগণের কাছে যাদের জনপ্রিয়তা আছে, গুরুত্ব আছে তাদেরকেই মনোনয়ন দেওয়া হচ্ছে।

বগুড়ার ৭টি আসন থেকে ৫৩ জন আওয়ামী লীগের প্রার্থী হকে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। প্রত্যেকেই হতে চান নৌকার মাঝি। প্রত্যেকেই মনোনয়ন পাওয়ার বিষয়ে আশাবাদী। ৭টি আসনে কাকে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে এ নিয়ে চলছে জোর গুঞ্জন। তবে মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মনোনয়ন যাকেই দেওয়া হোক তার পক্ষেই কাজ করবেন এমনটিই জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন: মনোনয়ন চান আ.লীগের ১১ জন, সাংগঠনিক কাজে ব্যস্ত বিএনপি

বগুড়ার ১২টি উপজেলা নিয়ে ৭টি সংসদীয় আসন গঠিত। এরমধ্যে ৬টি আসনের কোনটিতে কতোজন এবং কারা মনোনয়ন জমা দিয়েছেন তাদের বিস্তারিত তুলে ধরা হলো-

বগুড়া-২ (শিবগঞ্জ): এই আসন থেকেও ৯ জন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন। তারা হলেন- শিবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোস্তাফিজার রহমান মোস্তা, সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক, সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রিজ্জাকুল রহমান রাজু, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মোবাশ্বার হোসেন স্বরাজ, জেলা যুবলীগের সভাপতি শুভাশীষ পোদ্দার লিটন, শিবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ফাহিমা আকতার, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আজিজুল হক, উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আকরাম হোসেন ও উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আবুল কাশেম ফকির।

বগুড়া-৩ (আদমদিঘী ও দুপচাঁচিয়া): এ আসন মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন ৮ জন। তারা হলেন- আদমদিঘী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও এই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম খান রাজু, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন, জেলা আওয়ামী লীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট তবিবর রহমান তবি, আদমদিঘী উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অজয় কুমার সরকার, কেন্দ্রীয় যুব মহিলা লীগের সদস্য ও দুপচাঁচিয়া উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মাহবুবা নাসরিন রূপা, আদমদিঘী উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও সান্তাহার ইউপি চেয়ারম্যান নাহিদা সুলতানা তৃপ্তি, দুপচাঁচিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মিজানুর রহমান খান সেলিম ও প্রজন্ম লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ফেরদৌস হাবিব।

বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম): এ আসন থেকে ৫ জন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন। তারা হলেন- কাহালু উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হেলাল উদ্দিন কবিরাজ, নন্দীগ্রাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার হোসেন রানা, নন্দীগ্রাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রেজাউল আশরাফ জিন্নাহ, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য এএনএম আহছানুল হক ও তৌহিদুল করিম কল্লোল।

বগুড়া-৫ (শেরপুর-ধুনট): এই আসন থেকে ৮জন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন কিনে জমা দিয়েছেন। তারা হলেন- এই আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু, ধুনট উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি টিআই নুরুন্নবী তারিক, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য সাবেক অধ্যক্ষ সামস-উল-আলম জয়, সাবেক সহকারী এ্যাটর্নি জেনারেল জান্নাতুল ফেরদৌস রূপা, তাঁতী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খান নূরে খোদা মুঞ্জু, শেরপুর উপজেলা যুবলীগের সদস্য আল-আমিন মণ্ডল ও এমএ হান্নান।

বগুড়া-৬ (সদর): এই আসন থেকে ছয়জন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন কিনে জমা দিয়েছেন। তারা হলেন- বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান সংসদ সদস্য রাগেবুল আহসান রিপু, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন শফিক, জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি টি জামান নিকেতা, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল আলম মোহন, জেলা আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ মাসুদুর রহমান মিলন ও জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবিহা সাবরিন পিংকী।

বগুড়া-৭ (গাবতলী ও শাজাহানপুর): এই আসন থেকে আটজন প্রার্থী আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন কিনে জমা দিয়েছেন। তারা হলেন- বিএমএ ও স্বাচিপ বগুড়ার সভাপতি ডা. মোস্তফা আলম নান্নু, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক একেএম আসাদুর রহমান দুলু, বগুড়া পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও গাবতলী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রফি নেওয়াজ খান রবিন, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ শাহাদৎ আলম ঝুনু, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান ভিপি সাজেদুর রহমান সাহিন, শাজাহানপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান প্রভাষক সোহরাব হোসেন ছান্নু, বগুড়া জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হেফাজত আরা মিরা এবং বগুড়া জেলা জাতীয় মহিলা শ্রমিক লীগের সাবেক সভাপতি ও জাতীয় শ্রমিক লীগের কেন্দ্রীয় মহিলা কমিটির সদস্য সচিব শামীমা আকতার জলি।

বগুড়া-৬ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য রাগেবুল আহসান রিপু বলেন, আমরা তো অবশ্যই প্রত্যাশা করি মনোয়ন পাওয়ার। তবে নেত্রীর মূল্যায়নকে অগ্রাধিকার দেবো। নেত্রী যাকে দেবেন তার জন্যই কাজ করবো।

বগুড়া-৫ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবর রহমান নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচন থেকে পরপর তিনবারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য। তিনি বলেন, দল থেকে এবারও তিনি প্রার্থী নির্বাচিত হবেন। এমনটাই প্রত্যাশা তার।  

বগুড়া-৪ (নন্দীগ্রাম-কাহালু) আসন থেকে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী নন্দীগ্রাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রেজাউল আশরাফ জিন্নাহ। তিনি বলেন, কেন্দ্র থেকে বলা হয়েছে যাদের মাঠ পর্যায়ে জনপ্রিয়তা আছে তাদেরকে মনোনয়ন দেওয়া হবে। সে কারণে আমি আশাবাদী। আমি দুইবার নৌকায় ৬০ শতাংশ ভোট নিয়ে নন্দীগ্রাম উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি। সে কারণে আমি আশাবাদী আমার দ্বারাই নৌকার পক্ষে এতো সংখ্যক ভোট কাস্ট করা সম্ভব। তবে দল থেকে যে সিদ্ধান্ত আসবে সেভাবেই কাজ করবেন তিনি।

বগুড়া-২ (শিবগঞ্জ) আসন থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক বলেন, তিনি মনোনয়নের বিষয়ে আশাবাদী। তবে নেত্রী যাকে মনোনয়ন দেবেন, তারপক্ষেই তিনি থাকবেন।

এনাম/মাসুদ

ঘটনাপ্রবাহ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়