ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ২৫ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ১২ ১৪৩১

গেইন ট্যাক্স নিয়ে পুঁজিবাজারে গুজব: রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

নুরুজ্জামান তানিম || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:২৩, ৭ জুন ২০২৩  
গেইন ট্যাক্স নিয়ে পুঁজিবাজারে গুজব: রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

মাঝে-মধ্যে গুজবের কারণে পুঁজিরবাজারে বড় ধরনের দরপতন ঘটে। এমন ঘটনা ঘটেছে গত মঙ্গলবার (৬ জুন)। ওই দিন শেয়ার বেচাকেনার মাধ্যমে ক্যাপিটাল গেইনের (অর্জিত মূলধনী আয়) ওপর করারোপ করা হচ্ছে, এমন গুজব ছড়ানো হয়েছিল পুঁজিবাজারে। ফলে, সূচকে বড় ধরনের পতন ঘটে। এই গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

সেই সঙ্গে ওই দিন যেসব ব্রোকারেজ হাউজ থেকে শেয়ার বিক্রির চাপ দিয়ে পুঁজিবাজারকে পতনমুখী করা হয়েছিল, তাদের বিরুদ্ধেও বিএসইসি কঠোর ব্যবস্থা নেবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

কমিশন সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বিনা কারণে যেসব ব্রোকারেজ হাউজ থেকে বিপুল পরিমাণ শেয়ার বিক্রির চাপ সৃষ্টি করে পুঁজিবাজারে সূচকের পতন ত্বরান্বিত করা হয়েছে, তাদের বিরুদ্ধে কমিশনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। 

দীর্ঘদিন ধরে একটি কুচক্রী মহল পুঁজিবাজারকে ক্ষতিগ্রস্ত করার লক্ষ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে ব্যবহার করে আসছে। এর আগে দুজন ব্যক্তিকে এ ধরনের অনৈতিক কর্মকাণ্ডের জন্য আটক করেছে গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম ডিভিশন। এছাড়া, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় আইনানুগ ব্যবস্থা নিচ্ছে কমিশন। তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে ব্যবহার করে যারা পুঁজিবাজারকে ক্ষতিগ্রস্ত করেছেন, তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

এর আগে শেয়ারবাজারে ক্যাপিটাল গেইনারের ওপর কর আরোপের বিষয়ে গুজব ছড়িয়ে বলা হয়, শেয়াবাজারের মূল আইন ১৯৬৯ সালের অধ্যাদেশ এবং ১৯৯৩ সালের আইন। এই দুটিকে এক করে ২০২৩ সালে নতুন আইন হতে যাচ্ছে। নতুন আইনটি মূলত পুরনো দুই আইনকে একত্রিত করবে এবং কিছু ক্ষেত্রে যুগোপযোগী হবে। এখন নতুন আইন কার্যকরের পর আগের অধ্যাদেশ এবং আইন রহিত হবে, সে ক্ষেত্রে ২০১৫ সালের জারি করা এসআরও 'ক্যাপিটাল মার্কেটে বিনিয়োগ থেকে মুনাফা করলে সেটার উপর কর দিতে হবে না' সেটা বাতিল হবে বলে বাজারে গুজব ছড়ানো হয়। এ থেকেই মূলত মঙ্গলবার পুঁজিবাজারে বড় পতন ঘটে।

তবে, এখনো এ বিষয়ে এনবিআর থেকে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। এনবিআরের নতুন আইনে পুরনো সিদ্ধান্ত বাতিল করার বিষয়ে কিছু বলা হয়নি। ফলে, নতুন আইনটি জারি হলে আগের সিদ্ধান্ত বাতিল হওয়ার খবরটি গুজব ছিল বলে বিএসইসি থেকে জানানো হয়েছে। এই গুজব ছড়িয়ে একটি চক্র বাজারে পতন ঘটায় এবং অনেক ব্রোকারেজ হাউজ থেকে সেদিন সেল প্রেসার দিয়ে প্যানিক সৃষ্টি করা হয়। এতে বিনিয়োগকারীরা ভয় পেয়ে শেয়ার বিক্রি শুরু করলে বাজারে বড় পতন ঘটে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম রাইজিংবিডিকে বলেছেন, ক্যাপিটাল গেইন ট্যাক্স নিয়ে পুঁজিবাজারে যে গুজব ছাড়ানো হয়েছিল, তার সত্যতা পাওয়া যায়নি। পুঁজিবাজারসহ বিনিয়োগকারীদের ক্ষতিগ্রস্ত করার জন্য যারা গুজব ছড়িয়েছেন, তাদের বিরুদ্ধে কমিশন আইনানুগ ব্যবস্থা নিচ্ছে।

এনটি/রফিক

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়