Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ২৯ জুলাই ২০২১ ||  শ্রাবণ ১৪ ১৪২৮ ||  ১৭ জিলহজ ১৪৪২

করোনার কারণে ইতালিতে শিশু জন্ম আশঙ্কাজনকভাবে কমেছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:০৬, ২৭ ডিসেম্বর ২০২০   আপডেট: ১২:০৯, ২৭ ডিসেম্বর ২০২০
করোনার কারণে ইতালিতে শিশু জন্ম আশঙ্কাজনকভাবে কমেছে

করোনা মহামারির কারণে ইতালিতে শিশু জন্ম আশঙ্কাজনকভাবে কমেছে। মহামারির কারণে সৃষ্ট অর্থনৈতিক সংকোচন ও অনিশ্চয়তার ফলে জনসংখ্যাভিত্তিক সঙ্কট সৃষ্টি হতে পারে বলে দেশটির জাতীয় পরিসংখ্যান সংস্থা ইসতাত জানিয়েছে।

২০১৯ সালে ইতালিতে চার লাখ ২০ হাজার শিশুর জন্ম হয়েছিল। ১৮৬১ সালে দেশটির একীভূত হওয়ার পর এ বছরেই সবচেয়ে কম সংখ্যক শিশুর জন্ম হয়। একই বছর দেশটিতে মারা যায় ছয় লাখ ৪৭ হাজার মানুষ। চলতি বছর ইতালিতে চার লাখ আট হাজার শিশুর জন্ম হতে পারে, যা বিগত বছরে তুলনায় কম। করোনার কারণে মৃত্যুহার বেড়ে যাওয়ায় চলতি বছর দেশটিতে মোট মৃতের সংখ্যা সাত লাখ ছাড়িয়ে যেতে পারে।

 ইসতাতের প্রেসিডেন্ট গিয়ান কার্লো ব্লাঙ্গিয়ার্দো বলেছেন, ‘ভয় ও অনিশ্চয়তার পরিবেশ এবং সাম্প্রতিক ঘটনাগুলোর কারণে সৃষ্ট বস্তুগত প্রকৃতির ক্রমবর্ধমান অসুবিধাগুলি ইতালীয় দম্পতিদের সন্তান জন্ম দেওয়ার সিদ্ধান্তে নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে এমনটি বৈধভাবেই অনুমান করা যায়।’

চলতি বছরের মৃতের সংখ্যা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘এটা উদ্বেগজনক পর্যায়। কারণ শেষবার এমন ঘটনা ঘটেছে ১৯৪৪ সালে ; যখন আমরা দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় ছিলাম।’

ইউরোপে করোনার প্রথম প্রাদুর্ভাব হয় ইতালিতে। দ্বিতীয় দফাতেও দেশটি করোনার ভয়াবহ থাবার শিকার। দেশটিতে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত ৬৭ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছে। মহামারির কারণে অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড সংকুচিত হওয়ায় দেশটিতে বেকারত্বের হার ৯ দশমিক ৪ শতাংশ থেকে বেড়ে আগামী বছর ১১ শতাংশে পৌঁছবে।

করোনায় দেশটির নারীরা অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। অনেকে চাকরি হারিয়েছেন। আবার শিশুদের স্কুল বন্ধ থাকায় অনেকে বাধ্য হয়েছেন চাকরি ছেড়ে দিতে। 


 

ঢাকা/শাহেদ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়