ঢাকা     রোববার   ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||  আশ্বিন ১২ ১৪২৭ ||  ০৯ সফর ১৪৪২

বাবা দিবসে সৎ বাবার প্রতি ভালোবাসা

স্বপ্নীল মাহফুজ || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৩:২৯, ১৫ জুন ২০১৯   আপডেট: ০৫:২২, ৩১ আগস্ট ২০২০
বাবা দিবসে সৎ বাবার প্রতি ভালোবাসা

স্বপ্নীল মাহফুজ : প্রতিবছর জুনের তৃতীয় রোববারে বিশ্বের ৫২টি দেশে বাবা দিবস পালন করা হয়। এদিন বাংলাদেশেও দিবসটি উদযাপিত হয়। এ দিবসে বাবার প্রতি ভালোবাসা প্রদর্শনার্থে বাবা পাগল সন্তানেরা নানারকম উদ্যোগ নিয়ে থাকেন, যেমন- বাবাকে কার্ড ও উপহার প্রদান, বাবাকে রেস্টুরেন্টে নিয়ে খাবার খাওয়ানো অথবা বাবার জন্য নিজ হাতে বিশেষ খাবার তৈরি করা এবং বাবাকে নিয়ে বাইরে কোথাও সময় কাটানো।

কিন্তু বাবা দিবস কি কেবলমাত্র রক্তের সম্পর্কের বাবাদের জন্য? না, আপনার দৃষ্টিভঙ্গি উদার করুন- বিশ্বে যত ধরনের বাবা আছে তাদের সবার জন্যই হোক বাবা দিবস।

অনেক সৎ ছেলেমেয়ে তাদের সৎ বাবাদেরকে মোটেই পছন্দ করেন না, এমনকি লোকটি ভালো হলেও। আবার অনেক সৎ বাবার আচরণ বা মনোভাবও সৎ ছেলেমেয়েদের প্রতি ইতিবাচক নয়। কিন্তু মানব সভ্যতাকে আরো চূড়ায় তুলতে হলে সৎ বাবা ও সৎ ছেলেমেয়েদের মধ্যকার বৈরীভাব দূর হওয়া আবশ্যক। উভয়ের মধ্যকার সম্পর্ক উন্নত করতে উভয়কেই ইতিবাচক পদক্ষেপ নিতে হবে। জন্মদাতার অকাল প্রয়াণ অথবা অন্য কারণে যাদের জীবনে সৎ বাবার আগমন ঘটেছে তারাও বাবা দিবসে সৎ বাবাকে সম্মান জানাতে পারেন অথবা ভালোবাসা প্রকাশ করতে পারেন।

সম্প্রতি পানীয় কোম্পানি বুডওয়েজার বাবা দিবসে সৎ বাবাদেরকে ভুলে না যেতে এবং তাদের অবদানকে মূল্যায়ন করতে ইউটিউবে একটি হৃদয়স্পর্শী শর্ট ফিল্ম রিলিজ করেছে। এ ভিডিওতে সৎ বাবার প্রতি তিন সৎ ছেলেমেয়ের ভালোবাসার আসল গল্প তুলে ধরা হয়েছে। এ ছেলেমেয়েরা আইনগতভাবে সৎ শব্দটি তুলে নিয়ে তাদের সৎ বাবাদেরকে চমকে দিয়েছেন।

বুডওয়েজারের মার্কেটিং বিভাগের সহ-সভাপতি মনিকা রাস্টগি টুডে ফুডকে জানান, ‘যেদিন বাবা দিবস উদযাপন করা হয়, বুডওয়েজার সেদিনটাতে পিতৃত্বের ওপর ভিন্ন আলোকপাত করতে চেয়েছে। বুডওয়েজার সেসব সৎ বাবাদেরকে সম্মান জানাচ্ছে যারা সৎ ছেলেমেয়েদেরকে নিজের সন্তানের মতো ভালোবাসেন।’

এ ভিডিওটিতে তিনজন সৎ ছেলেমেয়ে জানিয়েছেন যে, অনেক বছর আগে তাদের জীবনে সৎ বাবা এসেছে- সেসময় তারা নিশ্চিত ছিলেন না যে এ নতুন বাবার আচরণ কেমন হবে, কিন্তু শেষপর্যন্ত সৎ বাবার আদর-স্নেহ ও দায়িত্বশীলতায় তারা বিমোহিত হয়।

সৎ বাবাও যে ভালো বাবা হতে পারে অথবা দায়িত্বশীল হতে পারে তার তিনটি দৃষ্টান্ত এ শর্ট ফিল্ম থেকে পাওয়া যায়। এ ভিডিওর ক্লোয়ে স্বপ্ন দেখতেন যে তার মা ও জন্মদাতা আবারও একই ছাদের নিচে বাস করবেন। কিন্তু সময় পরিক্রমায় তার এ স্বপ্ন বিবর্ণ হতে থাকে, কারণ তিনি সৎ বাবা র‍্যান্ডল থেকে কল্পনাতীত আদর-স্নেহ ও দায়িত্বশীল আচরণ পেয়েছেন। ক্লোয়ের সৎ বাবা র‍্যান্ডল তার সৎ মেয়ের জন্য যা যা করা প্রয়োজন সবই করেছেন। এ ভিডিওর প্রত্যেক ছেলেমেয়ে তাদের সৎ বাবার অবদানকে প্রাতিষ্ঠানিক স্বীকৃতি দিয়েছেন।

হৃদয়স্পর্শী এ শর্ট ফিল্মটি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রচুর প্রশংসা কুড়িয়েছে। অনেকে লিখেছেন যে এ ভিডিও দেখে তারা অশ্রুসিক্ত হয়েছেন। টুইটারে একজন লিখেছেন, ‘এ ভিডিওটি আমার চোখ থেকে পানি ঝরিয়েছে। আমি সৌভাগ্যবান যে আমার জীবনে দুজন বাবা পেয়েছি- একজন হলো জন্মদাতা ও অন্যজন হলো সৎ বাবা।’

ইউটিউবে একজন তার কমেন্টে লিখেছেন, ‘যখন আমার বয়স চার বছর, আমার বাবা মারা যান। দশ বছর পর আমার মা পুনরায় বিয়ে করেন। ১৯ বছর বয়সে আমি সৎ বাবার শেষ নাম গ্রহণ করি। আমি ৪২ বছর ধরে এ নাম বয়ে চলেছি। এটি হলো তার প্রতি আমার ভালোবাসা ও শ্রদ্ধার প্রকাশ।’

বাবা দিবসের উদযাপন কেবলমাত্র জন্মদাতা কেন্দ্রিক হওয়া উচিত নয়, এ দিবসটা সৎ বাবাকে নিয়েও উদযাপন করা যায়। সৎ বাবার প্রতি অভিমান দূর করতে বাবা দিবসে উদ্যোগ নিতে পারেন। আপনাকে মনে রাখতে হবে যে, যে কেউ জন্ম দিতে পারে, কিন্তু দায়িত্বশীল বাবা সবাই হতে পারে না। যে বাবা আপনার কথা না ভেবে আপনার মাকে ডিভোর্স দিয়েছেন তার কথা না ভেবে বরং আপনার দায়িত্বশীল সৎ বাবাকে সম্মান  জানানোর কথা বিবেচনা করুন। আগামীকাল বাবা দিবসে আপনার ও আপনার সৎ বাবার সম্পর্ক আরো মজবুত হোক। শুভ বাবা দিবস।

সৎ বাবার প্রতি ভালোবাসা নিয়ে বুলওয়েজার কোম্পানির আলোচিত ভিডিওটি দেখুন


তথ্যসূত্র : ‍টুডে




রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৫ জুন ২০১৯/ফিরোজ

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়