ঢাকা     রোববার   ১৬ জুন ২০২৪ ||  আষাঢ় ২ ১৪৩১

ঘূর্ণিঝড় রেমালে ক্ষতি ১৭১১০৯ হেক্টর জমির ফসল 

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:৫৬, ৩০ মে ২০২৪  
ঘূর্ণিঝড় রেমালে ক্ষতি ১৭১১০৯ হেক্টর জমির ফসল 

ঘূর্ণিঝড় রেমালে দেশের বিভিন্ন জেলায় ১ লাখ ৭১ হাজার ১০৯ হেক্টর জমির ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (৩০ মে) কৃষি মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. কামরুল ইসলাম রাইজিংবিডিকে এ তথ্য জানান।

তিনি জানান, ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানার পর ক্ষয়ক্ষতির প্রাথমিক তালিকা তৈরি করেছে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর।

ওই তালিকা অনুযায়ী, গত ২৬ মে থেকে ২৭ মে  প্রাথমিকভাবে ৪৮টি জেলার কৃষিতে ঘূর্ণিঝড় রেমাল এর প্রভাব পড়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে। উল্লেখযোগ্য হারে আক্রান্ত হয়েছে উপকূলীয় বরিশাল অঞ্চলের ৬টি জেলা (বরিশাল, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, পটুয়াখালি, বরগুনা, ভোলা) এবং খুলনা অঞ্চলের ৪টি জেলা (খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, নড়াইল), চট্টগ্রাম অঞ্চলের নোয়াখালী, লক্ষীপুর, কক্সবাজার। বর্তমানে মাঠে দণ্ডয়মান ফসলি জমির পরিমাণ প্রায় ১৪,৩০,০৬৫ হেক্টর এবং আক্রান্ত ফসলি জমির পরিমাণ প্রায় ১,৭১, ১০৯ হেক্টর।  আউশ বীজতলা ১০৮৪৩ হেক্টর, ২১৪৩৪ হেক্টর আউশের জমি, বোরো ৭৭৩০ হেক্টর জমির ধান, বোনা আমন ৪৮২৬ হেক্টর, গ্রীষ্মকালীন সবজি ৫২১৯০ হেক্টর, পাট ২৯৭৪৯ হেক্টর, তিল ৭৫৩৬ হেক্টর, মুগ ৩৫০৭ হেক্টর এবং ২৪৪৪ হেক্টর জমির মরিচ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এছাড়া, ৭০৫৮ হেক্টর জমির পান ও ৪৭০৮ হেক্টর জমির আম, ১৫৭৫ হেক্টর জমির লিচু, ৭৬১৩ হেক্টর জমির কলাসহ মোট ১৭৫৪৩ হেক্টর জমির বিভিন্ন ফল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।  

কামরুল ইসলাম জানান, পানি দ্রুত সরে গেলে অনেক ফসলের জন্য সেটা আর্শিবাদ হয়ে ধরা দেবে। যেমন বোনা আমন, আউশ, পাট। বোরো ধান কাটা প্রায় শেষ পর্যায়ে থাকায় এবং মাঠে কিছু ভূট্টা, চীনাবাদাম ছাড়া অন্য রবিশস্য না থাকায় কৃষি বিরাট ক্ষতির হাত হতে কিছুটা হলেও রক্ষা পেয়েছে। আসন্ন আমনের জন্যও এ বৃষ্টি সুফল বয়ে আনবে। জমির চাষাবাদ উপযোগী অবস্থা বিশেষ করে খরা প্রবণ এলাকার জন্য বিশেষ কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে। সাত আট দিন পর ক্ষতির ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতির মাত্রাটা প্রকৃতপক্ষে বলা যাবে বলেও তিনি জানান।

ঢাকা/আসাদ/ইভা 

সম্পর্কিত বিষয়:

ঘটনাপ্রবাহ

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়