ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ২৭ জানুয়ারি ২০২২ ||  মাঘ ১৩ ১৪২৮ ||  ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

আলোক স্বল্পতায় ৩৩ ওভার আগে প্রথম দিন শেষ

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:৩২, ৪ ডিসেম্বর ২০২১   আপডেট: ১৬:১৩, ৪ ডিসেম্বর ২০২১
আলোক স্বল্পতায় ৩৩ ওভার আগে প্রথম দিন শেষ

আলোক স্বল্পতার কারণে প্রথম দিন মাত্র ৫৭ ওভার খেলা হয়েছে। ৩৩ ওভার বাকি থাকতেই আম্পায়ার প্রথম দিনের খেলার ইতি টানেন। প্রথম দিন পাকিস্তানের সংগ্রহ ২ উইকেট হারিয়ে ১৬১ রান। প্রথম সেশনে ৩১ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে ৭৮ রান তোলার পর দ্বিতীয় সেশনে ২৬ ওভারে ৮৩ রান যোগ করে। বাবর ৬০ ও আজহার ৩৬ রানে অপরাজিত আছেন। দুটি উইকেট নিয়েছেন তাইজুল ইসলাম। দ্বিতীয় দিন খেলা শুরু হবে আধঘন্টা আগে ৯টা ৩০ মিনিটে। 

পাকিস্তান: ১৬১/২ (বাবর ৬০*, আজহার ৩৬*)

জুটি: ৯১ রান 

আলোর স্বল্পতায় চা-বিরতির পর খেলা বন্ধ 

বাবর আজম ও আজহার আলীর ব্যাটে দাপট দেখাচ্ছে পাকিস্তান। দ্বিতীয় সেশনে তাদের জমাট জুটিতে এগিয়েছে দলের রান। ২৬ ওভারের খেলায় ৮৩ রান যোগ করেছে অতিথিরা। এ সেশনে কোনো উইকেট নিতে পারেনি বাংলাদেশ। বৃষ্টির কারণে ২২ মিনিট খেলা বন্ধ ছিল। বাকিটা সময় অনায়েসে রান তুলেছে পাকিস্তান। তাইজুল টানা বোলিং করেছেন। প্রথম ও দ্বিতীয় সেশন মিলিয়ে মোট ১৭ ওভার টানা হাত ঘুরিয়েছেন। সাকিব করেছেন ১১ ওভার। দুই বাঁহাতি স্পিনার তুলনামুলক ভালো বোলিং করেছেন। বাকিরা একেবারেই সাদামাটা।    

রানের দেখা পেলেন বাবর

বাংলাদেশের মাটিতে টি-টোয়েন্টি সিরিজে রান পাননি। সর্বোচ্চ করেছিলেন ১৯, আর দুই ম্যাচে আউট হয়েছেন ১ ও ৭ করে। প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে ১০ এর বেশি করতে পারেননি আর দ্বিতীয় ইনিংসে ১৩ রানে অপরাজিত ছিলেন। অবশেষে দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম ইনিংসে এসে রানের দেখা পেয়েছেন, ইতিমধ্যে তুলে নিয়েছেন অর্ধশতক। ৭৫ বলে ৭টি চার ও ১টি ছয়ে এই রান করেন পাকিস্তান অধিনায়ক। এটি টেস্ট ক্যারিয়ারে বাবরের ১৯তম ফিফটি। তাইজুল প্রথম স্পেলে টানা ১৭ ওভার বোলিং করেছেন। এখন মেহেদি হাসান মিরাজ টানা বোলিং করছেন এক প্রান্তে।  আরেক প্রান্তে সাকিবের জায়গায় এখন বোলিং করছেন এবাদত হোসেন। সাকিব দ্বিতীয় স্পেলে ৪ ওভারে ১৭ রান দিয়েছেন। এবাদতের এটি তৃতীয় স্পেল। 

বৃষ্টির বাগড়ার পর খেলা শুরু 

মধ্যাহ্ন বিরতির পর ৫০ মিনিট খেলা না হতেই বৃষ্টি বাগড়া দেয়। শনিবার সকাল থেকে মিরপুরের আকাশও ছিল ঘন কুয়াশায় ডাকা। দিনের আলো থাকলেও ছিল না সূর্যের  দেখা। এরই মধ্যে ১টা ৩০এর দিকে মিরপুরে হালকা বৃষ্টি নামতে দেখা যায়। যে কারণে মাঠকর্মীরা দ্রুতই কভার দিয়ে মাঠ ঢেকে ফেলেন। তবে ২৫ মিনিট বন্ধ থাকার পর আবার খেলা শুরু হয়। আবহওয়া অফিসের তথ্য মতে আগামী তিনদিন সারাদেশে হালকা বৃষ্টিপাতের সম্ভবনা ছিল। বৃষ্টির আগ পর্যন্ত পাকিস্তানের সংগ্রহ ছিল ২ উইকেট হারিয়ে ১৩২ রান। ক্রিজে ছিলেন বাবর ৩৮ ও আজহার ২০ রানে।

বাবর-আজহারে প্রতিরোধ পাকিস্তানের

বাবর আজম ও আজহার আলীর ব্যাটে প্রতিরোধ পেয়েছে পাকিস্তান। মধ্যাহ্ন বিরতির পর বেশ সাচ্ছন্দ্যে ব্যাটিং করছেন দুই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান। এরই মধ্যে তাদের দলীয় রান শতরান পেরিয়েছে।বিরতির পর সাকিব বোলিংয়ে ফেরেননি। প্রথম স্পেলে টানা ১১ ওভার বোলিং করেছেন। ৬ মেডেনে খরচ করেছেন ১৬ রান। তাইজুল আরেকপ্রান্তে বোলিং চালিয়ে যাচ্ছেন। ১১তম ওভারে বোলিংয়ে এসে টানা ওভার করছেন তাইজুল। এ প্রতিবেদন লিখা পর্যন্ত ১৪ ওভার বোলিং করেছেন বাঁহাতি স্পিনার।  

প্রথম সেশনে দুই দলের সমান লড়াই

টস হেরে ফিল্ডিং করতে নেমে এবাদতের দুর্দান্ত বোলিংয়ে ইনিংস শুরু করেছিল বাংলাদেশ। উইকেটের সুযোগ তৈরি করলেও শেষ পর্যন্ত হয়নি। আরেক প্রান্তে খালেদ ছিলেন সাদামাটা। দুজনের ৯ ওভার শেষে বোলিংয়ে আসেন সাকিব-তাইজুল। দুজনে চাপ তৈরি করতে থাকেন সফরকারী ব্যাটসম্যানদের ওপর। প্রথম সেশন শেষে পাকিস্তানের সংগ্রহ ২ উইকেট হারিয়ে ৭৮ রান। আজহার আলী ৬ ও বাবর আজম ৮ রানে অপরাজিত আছেন। দুটি উইকেটই নিয়েছেন তাইজুল। আবিদ আলী ৩৯ আব্দুল্লাহ শফিক ২৫ রানে আউট হন। প্রথম সেশনে সচরাচর ৩০ ওভার করে খেলা হয়, কিন্তু স্পিন বল হওয়াতে ৩১ ওভার হয়েছে। সাকিব-তাইজুল ১১ ওভার করে বোলিং করেছেন। মেহেদি মিরাজ এখনো শুরু করেননি। এই সেশনে বাংলাদেশ দুটি রিভিউ হারায়। আর মাত্র ১টি রিভিউ বাকি। 

তাইজুলের ঘূর্ণিতে এবার বোল্ড আবিদ

আরেক ওপেনার আবিদ আলীকেও বোল্ড করে সাজঘরে পাঠালেন তাইজুল ইসলাম। প্রথম টেস্টে এক ইনিংসে সেঞ্চুরি ও আরেক ইনিংসে নব্বইয়ের ঘরে গিয়ে আউট হয়েছিলেন। এবার হাফসেঞ্চুরির আগেই ৩৯ রানে তাকে আউট করেন তাইজুল। কাট করতে গেলে বল ব্যাটে লেগে আবিদের উইকেট ভেঙে দেয়। তাইজুলের ঘূর্ণিতে এবার বোল্ড আবিদ।  ক্রিজে এসেছেন নতুন ব্যাটসম্যান বাবর আজম। তার সঙ্গে আছেন আজহার। 

প্রথম সেশন শেষের আগেই দুই রিভিউ হারালো বাংলাদেশ

তাইজুলের ফুলার লেন্থের বল আজহারের ব্যাট ফাঁকি দিয়ে চলে যায় উইকেটের পেছনে লিটনের হাতে। কট বিহাইন্ডের আবেদনে আম্পায়ার সাড়া দেননি, বাংলাদেশ রিভিউ নিয়ে নেয়। পরে দেখা যায় বল ব্যাট স্পর্শ করেনি। প্রথম সেশন পার হওয়ার আগেই আরও একটি রিভিউ হারালো বাংলাদেশ। এর আগে সাকিবের বলে একটি রিভিউ হারায় স্বাগতিক শিবির। আর মাত্র ১টি রিভিউ নেওয়ার সুযোগ মুমিনুল হকের সামনে।

রিভিউ হারালো বাংলাদেশ

সাকিবের বলে বাম পা সামনে এগিয়ে ডিফেন্স করতে চেয়েছিলেন আব্দুল্লাহ শফিক, বল লাগে পায়ে। জোরালো আবেদনে সাড়া দেননি আম্পায়ার। একটু ভেবেই নিজেই রিভিউ নিয়ে নেন সাকিব, কিন্তু কোনো লাভ হয়নি। বল আউটসাইড স্ট্যাম্পে পিচ হওয়াতে রিভিউ হারায় বাংলাদেশ। 

আবিদ-শফিকে পাকিস্তানের সাবলীল শুরু

টস জিতে ব্যাটিং করতে নেমে বরাবরের মতো দুই ওপেনার আবিদ আলী-আবদুল্লাহ শফিক সাবলীলভাবে শুরু করেছেন। দুজনে ৮ ওভারেই তুলে ফেলেছেন ৩০ রান। এক প্রান্তে এবাদাত হোসেন দারুণ বোলিং করছেন, আউটের সুযোগও তৈরি হয়েছিল। কিন্তু আরেকপ্রান্তে খালেদ আহমেদ সাদামাটা বোলিং করে যাচ্ছেন। ১৫ ওভার পানি পানের বিরতি পর্যন্ত কোনো উইকেটের দেখা পায়নি বাংলাদেশ। দুই পেসারের পর তাইজুল ইসলাম ও সাকিব আল হাসান বোলিং শুরু করেছেন। 

অভিষেক হচ্ছে জয়ের, বাদ পড়েছেন রাহী-রাব্বি  

অভিষেক হচ্ছে উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান মাহমুদুল হাসান জয়ের। বাংলাদেশের ৯৯তম টেস্ট ক্রিকেটার জয়। আগের ম্যাচের একাদশ থেকে বাদ পড়েছেন ইয়াসির আলি রাব্বি ও আবু জায়েদ রাহী। দলের ফিরেছেন সাকিব আল হাসান ও পেসার খালেদ আহমেদ। বিশ্বকাপে পাওয়া হ্যামস্ট্রিং ইনজুরিতে সাকিব খেলতে পারেননি টি-টোয়েন্টি সিরিজ। প্রথম টেস্টের দলে থাকলেও শেষ মুহূর্তে ছিটকে পড়েন একই কারণে। অবশেষে তিনি ফিরেছেন দলে। এ ছাড়া খালেদ একাদশে ফিরেছেন আড়াই বছর পর। সবশেষ তিনি খেলেছেন হ্যামিল্টনে নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে, ২০১৯ সালের মার্চে। 

বাংলাদেশের একাদশ :

সাদমান ইসলাম, মাহমুদুল হাসান জয়, নাজমুল হোসেন শান্ত, সাকিব আল হাসান, মুমিনুল হক (অধিনায়ক), মুশফিকুর রহিম, লিটন কুমার দাস, মেহেদি হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, এবাদত হোসেন ও খালেদ আহমেদ।

অপরিবর্তিত পাকিস্তান একাদশ: এদিকে পাকিস্তান একাদশে কোন পরিবর্তন আসেনি। আগের ম্যাচের একাদশেই আস্থা রেখেছে সফরকারী দলের টিম ম্যানেজম্যান্ট। 

বাবর আজম (অধিনায়ক), আব্দুল্লাহ শফিক, আবিদ আলী, আজহার আলী, ফাওয়াদ আলম, মোহাম্মদ রিজওয়ান (উইকেটরক্ষক), ফাহিম আশরাফ, হাসান আলী, নোমান আলী, সাজিদ খান ও শাহীন শাহ আফ্রিদি।

টসে হারলো বাংলাদেশ 

মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে মুখোমুখি বাংলাদেশ-পাকিস্তান। এই ম্যাচে টস জিতে ব্যাটিং নিয়েছে পাকিস্তান। ফিল্ডিং করছে বাংলাদেশ। 

জয়ের জন্য মাঠে নামবে বাংলাদেশ

শনিবার (৪ ডিসেম্বর) চলতি বছরের শেষ টেস্টে জয়ের জন্যই মাঠে নামবে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘আমার কাছে মনে হয় টেস্ট ম্যাচে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ প্রথম ১ ঘন্টা। আমরা যদি উপর দিকে ভাল একটা শুরু করে দিতে পারি আমাদের সবার জন্য সহজ হবে। আপনি জানেন আমাদের শক্তি হলো ব্যাটিং। ব্যাটিংয়ে দুই থেকে আড়াই দিন পাঁচ-ছয় সেশন যদি ব্যাটিং করতে পারি তাহলে আমার কাছে মনে হয় যে আমরা খেলায় ফিরতে পারবো। অবশ্যই আমি আশাবাদী, কেউ-ই তো ম্যাচ হারার জন্য মাঠে নামে না, আমরা অবশ্যই জেতার জন্য নামবো।’

ঢাকা/রিয়াদ

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়