ঢাকা, সোমবার, ১০ আষাঢ় ১৪২৬, ২৪ জুন ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

‘জার্মানিতে ওয়ালটন পণ্য রপ্তানি হয় বলে তাদের এসি কিনি’

এম মাহফুজুর রহমান : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৫-২৫ ১০:১৭:০২ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৫-২৭ ৮:২৪:৫৪ পিএম
Walton AC 10% Discount

এম মাহফুজুর রহমান : চলতি বছরের এপ্রিলে ইউরোপের দেশ জার্মানিতে শুরু হয়েছে ওয়ালটন টেলিভিশন রপ্তানি। এর ফলে দেশের টেলিভিশন উৎপাদন শিল্পে উন্মেচিত হয়েছে নতুন এক দিগন্তের।

জার্মানিতে ওয়ালটন পণ্য রপ্তানির এই খবর পত্রিকায় দেখে নোয়াখালীর সোনাইমুড়ি উপজেলার দন্ত চিকিৎসক মো. জাহাঙ্গীর আলম ওয়ালটনের একটি এসি কেনেন। এসি কিনেই তিনি দেশব্যাপী চলমান ডিজিটাল ক্যাম্পেইন সিজন-ফোর এর আওতায় পেলেন পুরো এক বছরের বিদ্যুৎ বিলের টাকা ফ্রি!

ক্রেতাদের জন্য দেশের মাল্টিন্যাশনাল ইলেকট্রনিক্স ব্রান্ড ওয়ালটন এয়ার কন্ডিশনার বা এসিতে দিচ্ছে বিশেষ সুবিধা। দেশব্যাপী চলমান ডিজিটাল ক্যাম্পেইন সিজন-ফোর এ এসি কিনে ক্রেতারা পাচ্ছেন পুরো এক বছরের বিদ্যুৎ বিলের টাকা ফ্রি পাওয়ার সুযোগ। এসি কেনার সময়ই এক বছরের বিদ্যুৎ বিলের চেয়েও বেশি টাকা দিচ্ছে ওয়ালটন।

চলমান এই অফারের আওতায় গত ১৫ মে থেকে ২০ মে পর্যন্ত দেশব্যাপী মোট ৫ জন ক্রেতা ওয়ালটনের বিভিন্ন মডেলের এসি কিনে প্রত্যেকে এক বছরের বিদ্যুৎ বিলের টাকা ফ্রি পেয়েছেন। ওয়ালটনের এবারের এই ৫ জন ভাগ্যবান ক্রেতা হলেন-নারিয়ার মো. মাহবুব হাওলাদার, নওগাঁর সাপাহারের নূর-ই-আলম, টাঙ্গাইল শহরের আকাশ চন্দ, চট্টগ্রামের হালিশহরের খোন্দকার আতাউর রহমান এবং নোয়াখালীর সোনাইমুড়ির মো. জাহাঙ্গীর আলম।

গত ২০ মে নোয়াখালীর সোনাইমুড়ির ওয়ালটন প্লাজা থেকে ৩৬ হাজার টাকা দিয়ে ১ টনের একটি এসি কিনে ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের আওতায় এক বছরের বিদ্যুৎ বিল ফ্রি পান চিকিৎসক মো. জাহাঙ্গীর আলম।

আজ শবিবার বিদ্যুৎ বিল বাবদ ১৪ হাজার টাকা স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিকভাবে তার হাতে তুলে দেওয়া হয়।

একই দিনে হালিশহর থানার ওয়ালটন প্লাজা থেকে ৪৩ হাজার টাকায় ১.৫ টনের এসি কেনেন খোন্দকার আতাউর রহমান। তিনিও এক বছরের বিদ্যুৎ বিল বাবদ ১৮ হাজার টাকা গ্রহণ করেন।

অন্যদিকে গত ১৯ মে টাঙ্গাইল শহরের ময়মনসিংহ রোডের ওয়ালটন প্লাজা থেকে ৯৯ হাজার  ৯৮০ টাকায় ১.৫ টনের ২টি এসি কেনেন আকাশ চন্দ। পণ্য দু’টি কেনার পর ডিজিটাল রেজিস্ট্রেশন করেই জিতে নেন এক বছরের বিদ্যুৎ বিলের ১৮ হাজার টাকা। তিনি এসি দু’টি কেনেন তার শহরের ‘লিজেন্ড একাডেমিক অ্যান্ড এডমিশন কেয়ার’ কোচিং সেন্টারের জন্য।

বিশ্ববিদ্যালয় ও মেডিক্যাল ভর্তির কোচিং সেন্টার ‘লিজেন্ড একাডেমিক অ্যান্ড এডমিশন কেয়ার’-এর অন্যতম স্বত্বাধিকারী আকাশ চন্দ তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, এই এসি দু’টি যদিও কিনেছি আমার প্রতিষ্ঠানের জন্য কিন্তু আমি ব্যক্তিগতভাবেও ওয়ালটন পণ্য কিনে থাকি। কারণ বাজারে প্রাপ্ত যেকোনো পণ্যের তুলনায় ওয়ালটন পণ্যের মান ভালো এবং দামেও সস্তা। সার্ভিসও সবার থেকে ভালো।’

নোয়াখালীর চিকিৎসক জাহাঙ্গীর আলম ওয়ালটনের টিভি, ফ্রিজ ও ব্লেন্ডারসহ অনেক পণ্য ব্যবহার করেন জানিয়ে রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘পত্রিকার খবরে দেখেছি, ওয়ালটনের বিভিন্ন পণ্য এখন জার্মানিতে রপ্তানি হচ্ছে। খবরটি দেখে বেশ ভালো লাগে আমার। আমার দেশে তৈরি পণ্য রপ্তানি হচ্ছে জার্মানির মতো উন্নত দেশে! এখবর দেখেইে উৎসাহী হই ওয়ালটন পণ্য কিনতে। আমি বিশ্বাস করি, যাদের পণ্য জার্মানির মতো দেশে রপ্তানি হতে পারে তাদের পণ্য খারাপ হতে পারে না।’

সোনাইমুড়ি উপজেলার এই দাঁতের চিকিৎসক আরো জানান, তিনি তার ‘মেমি ডেন্টাল কেয়ার’ দন্ত চিকিৎসা চেম্বারের জন্য ৩৬,০০০ টাকার ১ টনের একটি এসি কিনে ১ বছরের বিদ্যুৎ বিল বাবদ ফ্রি পান ১৪ হাজার টাকা।

সোনাইমুড়ি ওয়ালটন প্লাজার ব্যবস্থাপক মো. মোস্তফা কামাল বলেন, গত বছরের তুলনায় চলতি বছরের ৪ মাসেই (জানুয়ারি-এপ্রিল) আমাদের এসি বিক্রির টার্গেটে পৌঁছে গিয়েছি। ক্যাম্পেইন শুরুর পর থেকে স্থানীয় ক্রেতাদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি। তাই এখন আমাদের এবারের বিক্রির টার্গেট দ্বিগুণ করেছি।

ওয়ালটন কর্মকর্তারা জানান, এক বছরের বিদ্যুৎ বিল ছাড়াও ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের আওতায় দেশের যেকোনো ওয়ালটন প্লাজা বা পরিবেশ শোরুম থেকে এসি কিনে ক্রেতারা পেতে পারেন সর্বোচ্চ এক লাখ টাকার ক্যাশ ভাউচারসহ ফ্রি ল্যাপটপ, ফ্রিজ, টিভিসহ অসংখ্য হোম ও ইলেকট্রিক্যাল অ্যাপ্লায়েন্স।

অন্যদিকে ‘এসি এক্সচেঞ্জ’ অফারের আওতায় ওয়ালটন প্লাজা বা শোরুমে যেকোনো ব্র্যান্ডের ব্যবহৃত পুরাতন এসি জমা দিয়ে ক্রেতারা ওয়ালটনের নতুন এসি কিনতে পারছেন। এক্ষেত্রে পুরনো এসি জমা দিলে গ্রাহক তার পছন্দকৃত নতুন ওয়ালটন এসির মূল্য থেকে ২৫ শতাংশ ছাড় পাচ্ছেন। রয়েছে ইএমআই এবং কিস্তি সুবিধায় কেনার সুযোগ।





রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৫ মে ২০১৯/মাহফুজুর রহমান/ইভা

Walton AC
     
Walton AC
Marcel Fridge