ঢাকা     শনিবার   ২০ জুলাই ২০২৪ ||  শ্রাবণ ৫ ১৪৩১

ছেলেকে নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না বাবার

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২৩:০১, ২৪ জুন ২০২৪  
ছেলেকে নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না বাবার

ছেলেকে নিয়ে আর বাড়ি ফেরা হলো বাবা খায়রুল সিকদারের (৫৫)। বাড়ি যাবার আগেই প্রাণ কেড়ে নিলো ঘাতক বাস। এতে ছেলে মনিরুল সিকদারসহ (২২) আহত হয়েছে ২ জন।

সোমবার (২৪ জুন) রাতে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার চন্দ্রদীঘলিয়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। গোপালগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আনিচুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

নিহত খায়রুল সিকদার পাইককান্দি ইউনিয়নের সোনাশুর গ্রামে নুরুদ্দিন সিকদারের ছেলে। ওসি মোহাম্মদ আনিচুর রহমান জানান, খাইরুল সিকদার তার ছেলে মনিরুল সিকদারকে নিয়ে বিজয়পাশা থেকে ভ্যানে করে নিজ বাড়ি পাইককান্দি ইউনিয়নের সোনাশুর গ্রামে যাচ্ছিলেন। এসময় ভ্যানটি চন্দ্রদীঘলিয়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় পৌঁছালে বিপরীতমুখী ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা খুলনাগামী ইমাদ পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলে খাইরুল শিকদার নিহত হন ও তার ছেলেসহ দুই জন গুরুতর আহত হন।

পরে খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আহত মনিরুল ও ভ্যান চালককে উদ্ধার করে গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়। দুর্ঘটনার পর নিহতের মরদেহ বাড়িতে নিয়ে যায় পরিবারের সদস্যরা।

এ দুর্ঘটনার পর উত্তেজিত জনতা বাসটির সামনের কাঁচ ভাংচুর করে। এসময় ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক দিয়ে আধ ঘন্টা যান চলাচল বন্ধ থাকায় মহাসড়কের উভয় পাশে প্রায় তিন কিলোমিটার জুড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে দুর্ঘটনাকবলিত বাসটি সরিয়ে নিলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

বাদল/ফয়সাল

সম্পর্কিত বিষয়:

আরো পড়ুন  



সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়